জুড়ীতে বোনকে কুপিয়ে হত্যা করল ভাই

মৌলভীবাজার থেকে সংবাদদাতা :
মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলায় দুপুরের ভাত দিতে বিলম্ব করায় সৎ ভাই বকুল মিয়া (২২) দুই সন্তানেন জননী হেনা বেগম (৩০) কে কুপিয়ে হত্যা করলো বোনকে।
শনিবার (১২ এপ্রিল) দুপুরে জুড়ী উপজেলার জায়ফরনগর ইউনিয়নের কালীনগর গ্রামে নিহত হেনা বেগমের বসত ঘরে এ ঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, কালীনগর গ্রামের মৃত আব্দুল ওয়াহিদের পুত্র বকুল মিয়া (২০) বেশ কিছুদিন থেকে মানসিক রোগে আক্রান্ত। ঘটনার দিন তার প্রতিবেশি সৎ বোন আব্দুল মালিকের স্ত্রী দুই সন্তানের জননী হেনা বেগমের বসতঘরে ভাত খেতে চায়।
ভাত দিতে বিলম্ব করায় হেনা বেগমকে দেশীয় ধারালো দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে আহত করে। হেনার চিৎকারে প্রতিবেশিরা এসে বকুলকে বেঁধে রাখেন এবং হেনাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।
কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিএইচও ডা: নুরুল হক হেনার মৃত্যুর বিষয়টি শনিবার সন্ধ্যারাতে নিশ্চিত করেছেন।
জুড়ী থানার উপ-পরিদর্শক সৈয়দ বেলায়েত হোসেন বলেন, মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যমৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘাতক বকুলকে থানায় আটক করা হয়েছে। এব্যাপারে থানায় একটি হত্যা মামলার প্রস্তুতি চলছে।