সিলেট প্রেসক্লাবে গ্রামবাসীর সংবাদ সম্মেলন ॥ ওসমানীনগরে এক রাস্তার দরপত্রে অন্য রাস্তায় কাজের অভিযোগ সত্য নয়

0
3

স্টাফ রিপোর্টার :
ওসমানীনগরে এক রাস্তার দরপত্রে অন্য রাস্তায় কাজের অভিযোগকে অস্বীকার করেছেন উপজেলার সাদিপুর ইউনিয়নের হলিমপুর গ্রামবাসী। গতকাল বৃহস্পতিবার সিলেট প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এ ধরনের অভিযোগককে মিথ্যা ও বানোয়াট বলে উল্লেখ করেন তারা। এলাকাবাসীর পক্ষে ইমরুল চৌধুরী লিখিত বক্তব্যে বলেন, সম্প্রতি কয়েকটি জাতীয় ও স্থানীয় দৈনিকে “ওসমানীনগরে এক রাস্তার দরপত্রে অন্য রাস্তায় কাজের অভিযোগ” শীর্ষক একটি সংবাদ প্রকাশিত হওয়ায় আমরা মর্মাহত। কারণ সংবাদে যে  অভিযোগ আনা হয়েছে, তার একটিও সঠিক নয়।
লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, চলতি বছরের ১৮ জুলাই সাদিপুর ইউনিয়নের হলিমপুর বাজার-আরএইচডি, কলারাই বাজার, বুরুঙ্গা ইউপি জামতলা, বোয়ালজুড় নামীয়  সড়কের ১৫০০ মিটার কাজের দরপত্র আহ্বান করে বালাগঞ্জ এলজিইডি অফিস। বিজ্ঞপ্তি জারির পর এতে প্রায় ১৪ টি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান দরপত্র দাখিল করে। দীর্ঘ যাচাই-বাছাইয়ের প্রেক্ষিতে কাজটি পায় জেবি কন্সট্রাকশন। প্রতিষ্ঠানটি বৈধভাবে গত ২৯ অক্টোবর সংশ্লিষ্ট রাস্তার কাজ শুরু করে। বর্তমানে রাস্তার প্রায় ২৫ ভাগ কাজ সম্পন্ন হয়েছে। কিন্তু মুল সড়কের পরিবর্তে সংবাদে উল্লেখ করা হয়েছে মুতিয়ার গাঁও-ভাগলপুর একটি শাখা সড়কের বরাদ্ধকৃত কাজ করানো হচ্ছে ভিন্ন একটি সড়কে। অথচ এলজিইডি অফিসের রেকর্ড অনুযায়ী এ নামে কোন সড়ক নেই। দরপত্রের আইডি নং দেখানো হয়েছে (৬৯১০৮৩০১০)। কিন্তু প্রকৃতপক্ষে নির্মাণাধীন রাস্তার মেমো নং হচ্ছে (এলজিইডি/এসডিআরএলএলপি/১১-২০৭/২০১৪/২৪৬৫)। সংবাদে যে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছে সে প্রতিষ্ঠানটি বালাগঞ্জ উপজেলার পুরাতন একটি দক্ষ ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান। এক রাস্তার দরপত্রে অন্য রাস্তায় কাজের ফলে ভাগলপুর-মুতিয়ার গাঁও গ্রামবাসীর মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে এমন উস্কানীমুলক যে বক্তব্য আনা হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা ভিত্তিহীন। আমাদের পরস্পর গ্রামবাসীর মধ্যে অতিপূর্বকাল থেকে একটি সোহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। এখানে উত্তেজনার কোন প্রশ্নই উঠে না।
সংবাদ সম্মেলনে চক্রান্তকারীদের অপপ্রচারে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট সকল মহলের প্রতি আহবান জানিয়েছেন হলিমপুর গ্রামবাসীা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন মো. আবুল কালাম খান, ময়না মিয়া, আব্দুল খালিক, লুৎফুর রহমান প্রমুখ।