ইতিহাস গড়ে কলম্বিয়াকে হারালো জাপান

0
4

স্পোর্টস ডেস্ক :
কলম্বিয়ার বিপক্ষে দুর্দান্ত জয়ের মাধ্যমে বিশ্বকাপ মিশন শুরু করল জাপান। মঙ্গলবার রাশিয়া বিশ্বকাপের গ্র“প পর্বের ম্যাচে দক্ষিণ আমেরিকার দেশ কলম্বিয়াকে ২-১ গোলে হারালো এশিয়ার ফুটবল পরাশক্তি জাপান। বিশ্বকাপে জাপান এশিয়ার প্রথম দল হিসাবে দক্ষিণ আমেরিকার কোনো দলকে হারালো। সারানস্কে অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে জাপানের দুইটি গোলের মধ্যে একটি করেন শিনজি কাগওয়া। অপর গোলটি করেন ইউয়া ওসাকো। কলম্বিয়ার একমাত্র গোলটি করেন হুয়ান ফার্নান্দো কুইনটেরো। ম্যাচ সেরার পুরস্কার পেয়েছেন জাপানের ইউয়া ওসাকো।
গতকাল ম্যাচের তৃতীয় মিনিটে নিশ্চিত গোল বাঁচাতে ডি-বক্সের মধ্যে হাত দিয়ে বল ঠেকান কার্লোস সানচেজ। যেটি রেফারির চোখ এড়াতে পারেনি। রেফারি সঙ্গে সঙ্গে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দেন। সেই সাথে লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন কলম্বিয়ার মিডফিল্ডার কার্লোস সানচেজ। রাশিয়া বিশ্বকাপে এটিই প্রথম লাল কার্ড। ম্যাচের ষষ্ঠ মিনিটে পেনাল্টি থেকে দারুণ দক্ষতার সাথে গোলটি করেন শিনজি কাগওয়া। রাশিয়া বিশ্বকাপে এটি দ্রুততম গোল। অন্যদিকে, কার্লোস সানচেজের এই লাল কার্ডটি বিশ্বকাপের ইতিহাসে দ্বিতীয় দ্রুততম।
জাপানের কাগওয়া গোল বরাবর শট করেন। আর ডি-বক্সের মধ্য থেকে হাত দিয়ে বল ঠেকান কার্লোস সানচেজ। সঙ্গে সঙ্গেই রেফারি লাল কার্ড দেখান। যদি সানচেজ রেফারিকে বোঝাতে চেয়েছেন তিনি এটি ইচ্ছা করে করেননি। কিন্তু রেফারি কোনোকিছুতেই কর্ণপাত না করে লাল কার্ড দেখিয়ে দেন।
এরপর দশজনের দল নিয়ে লড়াই করতে থাকে কলম্বিয়া। ম্যাচের ৩৯তম মিনিটে কলম্বিয়াকে ১-১ সমতায় ফেরান ফার্নান্দো কুইনটেরো। ফ্রি-কিক থেকে গোলটি করেন তিনি। শটটি জাপানের গোলরক্ষক ঝাপ দিয়ে ঠেকিয়েছিলেন। কিন্তু তিনি যখন বলটি ঠেকিয়েছেন তখন বলটি গোললাইন অতিক্রম করে। বলটি তিনি সেভ করতে পেরেছেন এমনটিই তিনি দাবি করেন। কিন্তু তার দাবি সত্য প্রমাণিত হয়নি। গোললাইন প্রযুক্তির মাধ্যমে রেফারি স্পষ্ট করে জানিয়ে দেন যে এটি গোল হয়েছে।
বিরতির পর ৫৯তম মিনিটে ফার্নান্দো কুইনটেরোর বদলি হিসাবে মাঠে নামেন কলম্বিয়ার তারকা ফুটবলার হামেস রদ্রিগুয়েজ। কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধে গোল করতে ব্যর্থ হয় তারা। তবে, গোল করে জাপান। ৭৩তম মিনিটে হোন্ডা কেইসুকের কর্নার কিক থেকে দুর্দান্ত হেডে কলম্বিয়ার জালে বল পাঠান ইউয়া ওসাকো। ম্যাচের বাকি সময়ে কোনো গোল না হওয়ায় ২-১ ব্যবধানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে জাপান।
এই দল দুইটি লড়াই করছে গ্রুপ ‘এইচ’ থেকে। এই গ্রুপে অন্য দুইটি দল হচ্ছে পোল্যান্ড ও সেনেগাল। আগামী ২৪ জুন সেনেগালের মুখোমুখি হবে জাপান। এরপর ২৮ জুন পোল্যান্ডের মুখোমুখি হবে এশিয়ার এই দলটি। অন্যদিকে, ২৪ জুন পোল্যান্ডের মুখোমুখি হবে কলম্বিয়া। আর ২৮ জুন সেনেগালের মুখোমুখি হবে তারা।
গত ১৪ জুন শুরু হয়েছে রাশিয়া বিশ্বকাপ। টুর্নোমেন্টের গ্রুপ পর্বের খেলা শেষ হবে আগামী ২৮ জুন। এরপর ৩০ জুন শুরু হবে নকআউট পর্বের খেলা। ফাইনাল ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৫ জুলাই।