বড়লেখায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনায় মামলা, বিএনপির নেতাকর্মীরা বিস্মিত

0
7

বড়লেখা থেকে সংবাদদাতা :
মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলা বিএনপি ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের ১১ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে অ্যাসল্ট মামলা করেছে পুলিশ। গত ১ সেপ্টেম্বর বড়লেখা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শরীফ উদ্দিন বাদি হয়ে মামলাটি করেছেন (মামলা নম্বর-০৪)। অথচ পুলিশের সাথে কোন সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেনি বলে জানিয়েছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। মামলা দায়েরের ঘটনায় তারা বিস্ময় প্রকাশ করেছেন।
মামলায় উপজেলা বিএনপির প্রচার সম্পাদক আব্দুল কুদ্দুস স্বপন, পৌর বিএনপির যুব বিষয়ক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম খোকন, উপজেলা বিএনপির ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক আব্দুল কাদির পলাশ, পৌর বিএনপির প্রচার সম্পাদক কামরুল ইসলাম, উপজেলা বিএনপির সদস্য ইকবাল হোসেন, বর্ণি ইউনিয়ন বিএনপির আহবায়ক লোকমান হোসেন বায়েস, পৌর বিএনপির অর্থ বিষয় সম্পাদক মো. সফিকুজ্জামান, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা মো. রায়হান মুজিব ও আব্দুল মালিক, উপজেলা ছাত্রদল নেতা জাহিদুল ইসলাম মতিন ও পৌর ছাত্রদলের যুগ্ম আহবায়ক শিপার আহমদের নামোল্লেখ ও অজ্ঞাতপরিচয় আরও ৪০-৫০ জনকে আসামি করা হয়েছে।
এদিকে বুধবার বিকেলে উপজেলা বিএনপির সভাপতি আব্দুল হাফিজ, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান খছরু ও সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক মো. আব্দুস সহিদ খান সংবাদমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে উপজেলা বিএনপি নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলাটি উদ্দেশ্যেপ্রণোদিত, মিথ্যা দাবি করে এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।
মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, গত ১ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ছিল। এদিন বড়লেখা উপজেলা বিএনপির নেতাকর্মীরা বড়লেখা-জুড়ী আঞ্চলিক মহাসড়কের বড়লেখা পৌরশহরের দক্ষিণ বাজার এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করে রাখে। এতে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। সড়কের উভয় পাশে শতশত গাড়ি আটকা পড়ে। খবর পেয়ে পুলিশ সেখানে গিয়ে বিএনপির নেতাকর্মীকে অবরোধ তুলে নিতে বলেন। এতে বিএনপি নেতাকর্মীরা উত্তেজিত হয়ে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে পুলিশের তাদের ওপর হামলা চালায়। এসময় কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হন বলে এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে।
এদিকে গত ১ সেপ্টেম্বর পুলিশের সঙ্গে উপজেলা বিএনপির নেতাকর্মীদের কোনো সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেনি বলে জানিয়েছেন উপজেলা বিএনপির নেতাকর্মীরা। খোঁজ নিয়ে গেছে, ওইদিন উপজেলা বিএনপি র‌্যালি ও আলোচনা সভা করে দিনটি পালন করে। সড়ক অবরোধ কিংবা পুলিশের ওপর হামলার কোনো ঘটনা ঘটেনি।
উপজেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যাপক আব্দুস সহিদ খান বুধবার রাতে জানান, গত ১ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ জাতীয়বাদী দল বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বড়লেখা উপজেলা বিএনপি শান্তিপূর্ণভাবে র‌্যালি ও আলোচনা সভা করেছে। বিএনপির নেতাকর্মীরা কোনো সড়ক অবরোধ করেনি। পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ তো দূরের কথা। কিন্তু পুলিশ মিথ্যা একটি মামলা করেছে। তিনি এর তীব্র নিন্দা জানিয়ে বিএনপির নেতাদের ওপর দায়ের করা মামলাটি অবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবি জানান।
এ ব্যাপারে মামলার বাদি বড়লেখা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শরীফ উদ্দিন বুধবার রাতে বলেন, গত ১ সেপ্টেম্বর বিএনপির নেতাকর্মীরা বড়লেখা পৌরশহরের দক্ষিণ বাজার এলাকায় টায়ার জ্বালিয়ে অবরোধ করে রাখে। পুলিশ সেখানে গিয়ে বিএনপির নেতাকর্মীকে অবরোধ তুলে নেওয়ার জন্য বলে। এসময় বিএনপি নেতাকর্মীরা উত্তেজিত হয়ে পুলিশের ওপর হামলা চালায়। সংর্ঘষে কয়েকজন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। তারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে চিকিৎসা নিয়েছেন।