প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণীর চাকরিতে কোটা বাতিল

0
7

কাজিরবাজার ডেস্ক :
প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণীর সরকারি চাকরিতে মুক্তিযোদ্ধাসহ সব কোটা বাতিলের সুপারিশ অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা। শিগগির এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি হবে বলে জানিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম।
বুধবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে সচিবালয়ে এক ব্রিফিংয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব জানান, প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণীর চারকিরে শতভাগ নিয়োগ হবে শতভাগ সাধারণ মেধা তালিকা থেকে। তবে তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণীর চাকরিতে আগের নিয়মেই কোটা থাকবে।
এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার বৈঠকে ‘প্রজাতন্ত্রের কর্মে সরাসরি নিয়োগের ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সরকারের বিদ্যমান কোটা পদ্ধতি সংস্কার/বাতিলে’ জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাব তোলা হয়।
এই প্রস্তাতে তিনটি সুপারিশ ছিল। ১. প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণীতে মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ, ২. কোটা বাতিল এবং ৩. কোটা বাতিলের ফলে বিদ্যমান জনগোষ্ঠীর বিষয়ে যথাপযুক্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ। এই দিনটি সুপারিশই অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।
এক প্রশ্নে সচিব জানান, দুই-তিন দিনের মধ্যে প্রজ্ঞাপন জারি করবে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ৩৮, ৪০ তম বিসিএস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত নির্দেশনা অনুসারে হবে।
সরকারি চাকরিতে বাংলাদেশে মোট ৫৬ শতাংশ কোটা আছে। এর মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জন্য ৩০ শতাংশ, জেলা ও নারী কোটা ১০ শতাংশ করে, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর কোটা পাঁচ শতাংশ এবং এক শতাংশ আছে প্রতিবন্ধী কোটা।