নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডের যে সব স্থানে কোরবানীর পশু জবাই করা যাবে

0
3

নির্দিষ্ট স্থানে পশু কোরবানি নিশ্চিত করতে কার্যক্রম নিয়েছে সিলেট সিটি কর্পোরেশন (সিসিক)। নগরীর ২৭টি ওয়ার্ডের ৩২টি স্থান এবার পশু জবাইয়ের জন্য নির্ধারণ করা হয়েছে। ঈদের দিন ওই স্থানগুলোতে পশু জবাই করতে হবে নগরবাসীকে। এ বিষয়ে প্রচার চালানো এবং কোরবানির স্থানে সব ধরনের সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করতে নানা পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।
পবিত্র ঈদুল-আযহা উপলক্ষে নির্ধারিত স্থানে কোরবানীর পশু জবাই উপলক্ষে পশু জবাইকারী কর্মীদের সাথে মতবিনিময় কালে এ তথ্য জানান সিলেট সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: জাকারিয়া।
রবিবার বিকেলে সিসিক হল রুমে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী নুর আজিজুর রহমান, নির্বাহী প্রকৌশলী আলী আকবর, স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ধ্র“ব পুরকায়স্থ, সহকারী প্রকৌশলী জয়দেব বিশ্বাস সহ সিসিকের বিভিন্ন শাখার কর্মকর্তা-কর্মচারী ও পশু জবাইকারী কর্মীরা।
নগরীর ৩২টি নির্ধারিত স্থান হচ্ছে সিলেট নগরীর ১ নং ওয়ার্ডের অর্ণব ৩০ মীরের ময়দান। ২নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, মেঘনা এ/২৪ দাড়িয়াপাড়া। ৩নং ওয়ার্ডের সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলোনী মাঠ। ৪নং ওয়ার্ডের আম্বরখানা সরকারী কলোনী মাঠ, ৫নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, বাসা নং ৬৯, আম্বরখানা বড় বাজার রোড, ৬নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, চৌকিদেখী, এয়ারপোর্ট রোড। ৭নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, ১০৯ ঐক্যতান পশ্চিম পীর মহল¬া। ৮নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, কালিবাড়ি রোড ও বিরেশ চন্দ্র স্কুল রোড, ইলাছুর রহমান এর বাসা সংলগ্ন। ৯নং ওয়ার্ডের জবাইখানা, এতিম স্কুল রোড, বাগবাড়ী। ১০নং ওয়ার্ডের কলাপাড়া ওয়ার্কসপের মাঠ ঘাসিটুলা ও নবাব রোড, পিডিবি স্কুল মাঠ। ১১নং ওয়ার্ডের লালদিঘীর পাড় বালুর মাঠ। ১২নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, পুরাতন পাসপোর্ট অফিসের নিকট, শেখঘাট রোড। ১৩নং ওয়ার্ডেও ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, সুগন্ধা-৬০, ছড়ারপার রোড। ১৪নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, সুগন্ধা-৬০, ছড়ারপার রোড ও জেলা প্রশাসকের কার্যালয় মাঠ। ১৫নং ওয়ার্ডের শাহজালাল জামিয়া স্কুল এন্ড কলেজ মাঠ, মিরাবাজার। ১৬নং ওয়ার্ডের সওদাগরটুলা মাঠ। ১৭নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলরের বাসা সংলগ্ন খোলা স্থানে, কাজীটুলা। ১৮নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, আগপাড়া কো-অপারেটিভ অফিসের সামনে আগপাড়া রোড। ১৯নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, প্রত্যয় ৪৩, আলমটুলা রায়নগর। ২০নং ওয়ার্ডের সৈয়দ হাতিম আলী (রহ.) উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ। ২১নং ওয়ার্ডের সৈয়দ হাতিম আলী (রহ.) প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠ শিবগঞ্জ। ২২নং ওয়ার্ডের ই ব¬ক স্প্রিং টাওয়ার সংলগ্ন মাঠ, এ ব¬ক মসজিদের সামনের মাঠ ও সি ব¬ক মাঠ, শাহজালাল উপশহর। ২৩নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, মাছিমপুর। ২৪নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, প্রতিশ্রুতি-৮০, কুশিঘাট, গাজী বুরহান উদ্দিন রোড। ২৫নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, ফরেন পোস্ট অফিসের পশ্চিম পার্শ্বে, বঙ্গবীর রোড। ২৬নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড কাউন্সিলর এর কার্যালয়, স্টেশন রোড, ভার্থখলা,কদমতলী। ২৭নং ওয়ার্ডের গোটাটিকর প্রাইমারী স্কুল মাঠ, আলমপুর, সিলেট।
প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো: জাকারিয়া বলেন, নগরীতে যত্রতত্র পশু কোরবানি দেওয়া হলে নগরী অপরিচ্ছন্ন হয়ে পড়ে। এতে করে দ্রুততার সাথে কোরবানির বর্জ্য পরিষ্কার সম্ভব হয়ে ওঠে না। এসব বিষয় বিবেচনা করে সরকারি নির্দেশনার আলোকে নির্দিষ্ট স্থানে কোরবানি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় সিলেট সিটি করপোরেশন।
সিলেট সিটি করপোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী নূর আজিজুর রহমান, কনজারভেন্সি কর্মকর্তা হানিফুর রহমান ও সহকারী প্রকৌশলী জয়দেব বিশ্বাস পবিত্র ঈদুল আজহার দিন এ বিষয়টি সার্বিক তদারকি করবেন। বিজ্ঞপ্তি