গোলাপগঞ্জের লিপন হত্যা মামলায় অজ্ঞাত ৫শ’ আসামী, পুলিশ আতঙ্কে গ্রামবাসী

0
6

সেলিম হাসান কাওছার গোলাপগঞ্জ থেকে :
গোলাপগঞ্জে স্থানীয়দের গণপিটুনিতে লিপন চন্দ্র দেব নিহতের ঘটনায় নিহতেন মা হেপি রাণী দেব (৬০) বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা ৫০০ লোককে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। মামলা দায়েরের পর থেকে পুলিশ আতঙ্কে স্থানীয় গ্রামবাসী। গত মঙ্গলবার রাত থেকে উপজেলার ঢাকাদক্ষিণ দত্তরাইল নোয়াপাড়া গ্রামে শুনশান নিরবতা চলছে। অনেকে পুলিশের ভয়ে নিকট আত্মীয়দের বাড়ীতে আশ্রয় নিয়েছেন। স্থানীয়দের গণপিটুনিতে নিহত হওয়া লিপন চন্দ্র দেব (৩৫) একই গ্রামের মৃত নগেন্দ্র চন্দ্রের ছেলে। সে মাদক মামলাসহ গোলাপগঞ্জ থানার একাদিক মামলার আসামী ছিল বলে পুলিশ সূত্রে জানা যায়। ঘটনাটি ঘটে গত ৩০ জুলাই বিকাল সাড়ে ৫টায়। সে দীর্ঘদিন থেকে স্থানীয়দের বিভিন্ন ভাবে হয়রানি জুলুম অত্যাচার চালিয়ে আসছিল। মাদক ব্যবসাসহ তার নির্যাতন সহ্য করতে না পারায় স্থানীয় লোকজন তাকে গণপিটুনি দেয়। নিহতের মাও তার জুলুম অত্যাচার থেকে রক্ষা পাননি। নিহতের মা হেপি রাণী দেবের সাথে আলাপ করা হলে তিনি জানান, আইনি ফাঁক ফুকর থেকে বাঁচতে তিনি এ মামলা দায়ের করছেন। লিপন আমার ছেলে হলে কি হবে আমাকে খুবই জ্বালিয়েছে। ক’দিন পরপর আমার উপরও নির্যাতন করত সে। তার নির্যাতন থেকে আমি বাঁচতে তাকে পুলিশের হাতেও ধরিয়ে দেই। জেল থেকে বের হওয়ার পর আবার নির্যাতন শুরু করে আমার উপর। এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ওয়ারেন্ট অফিসার এসআই শংকর দেবের সাথে আলাপ করা হলে তিনি জানান, আজ বৃহস্পতিবার থেকে তদন্তের মাধ্যমে অভিযানে নামবেন। এ ব্যাপারে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার ওসি একেএম ফজলুল হক শিবলীর সাথে আলাপ করা হলে তিনি জানান, আমরা বিষয়টি দেখছি। তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়া হবে। মঙ্গলবার ৪০০/৫০০ লোককে আসামী করে নিহতের মা মামলা করছেন। ওই দিনই মামলাটি রেকর্ড হয়।