চুনারুঘাটে আকল মিয়া হত্যা, আদালতে শামীমের স্বীকারোক্তি

হবিগঞ্জ থেকে সংবাদদাতা :
হবিগঞ্জের চুনারুঘাটে ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতি সভাপতি আবুল হোসেন আকল মিয়া হত্যা মামলার অন্যতম আসামি জসিম উদ্দিন ওরফে শামীম আদালতে ১৪৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।
শনিবার (৩১ মার্চ) সন্ধ্যায় হবিগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুল ইসলামের আদালতে তিনি জবানবন্দি দেন।
বিষয়টি নিশ্চিত করে আদালত পরিদর্শক ওহিদুল আলম জানান, সন্ধ্যার আগে আসামি শামীমকে আদালতে হাজির করা হলে বিচারক তার জবানবন্দি গ্রহণ করেন।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা হবিগঞ্জ ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহ আলম জানান, দীর্ঘ সময় সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুলের কাছে জবানবন্দি দেওয়াকালে শামীম হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন। এছাড়া জড়িত আরো কয়েকজনের নাম প্রকাশ করেন। তবে মামলার তদন্তের স্বার্থে তাদের নাম প্রকাশ করেননি ডিবির ওসি।
তিনি আরো জানান, শামীম তার সহযোগীদের নিয়ে আকল মিয়াকে পরিকল্পনা করে হত্যা করেন। মূলত জমি সংক্রান্ত বিরোধের জন্যই তাকে তারা হত্যা করেন।
এর আগে শুক্রবার (৩০ মার্চ) সন্ধ্যায় ঢাকার তেজকোনিপাড়া এলাকা থেকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে শামীমকে গ্রেফতার করা হয় বলে জানান ওসি শাহ আলম।
১ মার্চ ভোরে আকল মিয়া বাল্লা রোডের তার নিজ বাসা থেকে মসজিদে আসার পথে দুর্বৃত্তের হামলায় নিহত হন। এ ঘটনায় চারজনকে আসামি করে হত্যা মামলা দায়ের করা হয়।