বিয়ানীবাজারে নিহত ৬ যুবকের অশ্র“জলে শেষ বিদায়, জানা যায় জনস্রোত

মাহবুব আহমদ খান, বিয়ানীবাজার থেকে :
কক্সবাজারের উখিয়ায় রোহিঙ্গা শরণার্থীদের ত্রাণ দিয়ে বাড়ি ফেরার পথে মারাত্মক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৬ যুবকের স্মরণকালের বৃহৎ জানাযার নামাজ গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টা ১০ মিনিটে বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজ প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে হাজার হাজার লোক অশ্র“জল নয়নে তাদেরকে জান্নাতুল ফেরদাউস দান করার জন্য আল্লাহর দরবারে ফরিয়াদ করেন। প্রিয়জনের লাশ একনজর দেখার জন্য সকাল ৮টা থেকে তাঁরা কলেজ ক্যাম্পাস জড়ো হতে থাকেন। শেষে জননতার উপস্থিতি জনস্রোতে রুপ নেয়। কেউ দেখেছেন নিথর দেহ আবার কেউ কেউ নিরবে চোখের জলে ভাসিয়ে দিয়েছেন। এক কথায় পুরো উপজেলা ছিল শোকে স্তব্ধ, বাকরুদ্ধ।
জানাযার নামাজে কলেজ ক্যাম্পাস ছাড়াও মানুষের ঢল নামে কলেজ রোড, টিএন্ডটি রোডে। অজস্র মানুষ সেখান থেকে নামাজে শরিক হন। ঐহিতাসিক এ জানাযার নামাজে ইমামতি করেন বিয়ানীবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব মাওলানা মোশাহিদ আহমদ কামালী।
প্রথম জানাযার নামাজ শেষে কফিনে করে মরদেহগুলো নিজ নিজ গ্রামে নিয়ে যাওয়া হয়। প্রত্যেকের নিজ এলাকায় তাদের দ্বিতীয় জানাযার নামাজ অনুষ্ঠিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এদিকে কলেজ ক্যাম্পাসে জানাযার নামাজে উপস্থিত ছিলেন গাড়ীতে থাকা একমাত্র জীবিত হাফিজ উদ্দিন। তাঁর মাথায় আঘাত পেয়েছেন। তাকে গতকাল মঙ্গলবার উন্নত চিকিৎসারর জন্য বিমানযোগে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে। অপর সহযাত্রী বুকে ও শরীরে হালকা আগাত পেলেও প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বিশ্রামে ছিলেন।
জানাযার নামাজে সিলেট, বিয়ানীবাজার, গোলাপগঞ্জ, বড়লেখা ও জকিগঞ্জ উপজেলার হাজার হাজার মানুষের মধ্যে উল্লেখযোগ্য ব্যক্তিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বড়লেখা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম সুন্দর, বিয়ানীবাজার পৌরসভার মেয়র মো. আব্দুস শুকুর, সিলেট জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামীম, যুক্তরাজ্য বিএনপি নেতা ফয়ছল আহমদ চৌধুরী,জেলা দক্ষিণের জামায়াতে ইসলামীর আমীর মাওলানা হাবিবুর রহমান, বিয়ানীবাজার উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজি আব্দুল হাছিব মনিয়া, শিক্ষামন্ত্রীর এপিএস দেওয়ান মাকসুদুল ইসলাম আউয়াল, গোলাপগঞ্জ পৌরসভার সাবেক মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলু, সিলেট জেলা পরিষদের সদস্য নজরুল হোসেন, সিলেট জেলা যুবদলের সভাপতি আব্দুল মান্নান, কবি ফজলুল হক, বিয়ানীবাজার সরকারি প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক খালেদ সাইফুদ্দীন জাফরী, বিয়ানীবাজার প্রেসক্লাবের সভাপতি আতাউর রহমান, উপজেলা বিএনপির সভাপতি নাজমুল হোসেন পুতুল, সাধারণ সম্পাদক ছিদ্দিক আহমদ, উপজেলা জামায়াতের আমীর মাওলানা ফয়জুল ইসলাম, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজি সামছুল হক, পৌর বিএনপির সভাপতি আবু নাসের পিন্টু, বিয়ানীবাজার ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি আজাদ উদ্দিন প্রমুখ।
উল্লেখ্য,সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতরা হলেন বিয়ানীবাজার পৌরশহরের জামান প্লাজার রূপশী ফ্যাশনের পরিচালক মাথিউরা পূর্বপার গ্রামের রেজাউল করিম রেজা, শখ কসমেটিক্সের পরিচালক ছোটদেশ গ্রামের খায়রুল বাশার খয়ের, মতিন ক্লথ স্টোরের সেলসম্যান শ্রীধরা গ্রামের জুবের আহমদ, মরটিনের ডিলার কাকরদিয়া গ্রামের ইকবাল আহমদ, কসবা গ্রামের বাবুল আহমদ ও গাড়ির চালক বাবুল।