জকিগঞ্জে পানি ঢেলে স্কুলের হাজিরার বায়োমেট্রিক যন্ত্র বিকল!

0
12

জকিগঞ্জ থেকে সংবাদদাতা :
জকিগঞ্জের সবকটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক শিক্ষার্থীদের সময় মতো উপস্থিতি ও প্রস্থান নিশ্চিতের লক্ষ্যে স্থাপিত ডিজিটাল হাজিরার যন্ত্রটি চালুর আগেই পানি ঢেলে বিকল করা হয়েছে। এমনটা নিশ্চিত করেছেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ইকবাল আহমদ তাপাদার।
তিনি জানিয়েছেন, প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক শিক্ষার্থীদের সময় মতো উপস্থিতি ও প্রস্থান নিশ্চিতের লক্ষ্যে ডিজিটাল হাজিরার উদ্যোগ নেয় উপজেলা প্রশাসন। প্রাথমিকভাবে ২০টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ডিজিটাল হাজিরা যন্ত্র সরবরাহ করা হয়েছে। এর মধ্যে বিয়াবাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের হাজিরা যন্ত্রটি চালুর আগেই পানি ঢেলে বিকল করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে তিনি বিয়াবাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে উপস্থিত হয়ে বায়োমেট্রিক যন্ত্রটি বিকল করার বিষয়টি নিশ্চিত হন এবং যন্ত্রটি জব্দ করেন। তবে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ফৌজিয়া বেগম যন্ত্রটি বিকল করার কথা অস্বীকার করেন। যন্ত্রটি প্রধান শিক্ষক কর্তৃক বিকল করার প্রমাণ হিসেবে একটি ভিডিও চিত্র দেখান উপজেলা চেয়ারম্যান। তখন প্রধান শিক্ষক বলেন ব্যাটারী লাগানোর জন্য আমরা স্ক্রু ড্রাইভার দিয়ে যন্ত্রটি খুলেছিলাম, বিকল হবে তা বুঝতে পারিনি। তবে তিনি পানি ঢেলে নষ্ট করার কথা অস্বীকার করেন। এ বিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে লিখিতভাবে জানিয়েছেন।
উপজেলা প্রাথমিক ভারপ্রাপ্ত শিক্ষা কর্মকর্তা বিরেন্দ্র চন্দ্র দাস বলেন, ভালো উদ্যোগকে আমরা স্বাগত জানিয়েছি। কিন্তু বিয়াবাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কেনো বায়োমেট্রিক যন্ত্রটি বিকল করলেন সেটি আমার বোধগম্য নয়। এ বিষয়ে তাকে অফিসে ডেকে ব্যাখ্যা চাওয়া হবে।